বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

যখন নতুন ছিলাম মেন্টর জোর করে মাদক দিত; চলত নির্যাতন: কঙ্গনা

সুশান্তের মৃত্যু-রহস্যে ড্রাগ ব্যবহার নিয়ে যে গুঞ্জন শুরু হয়েছে, তাতে অন্য মাত্রা যোগ করেছে রিয়া চক্রবর্তীর মাদকচক্রে জড়িয়ে যাওয়ার প্রসঙ্গ। সেই প্রসঙ্গ টেনে এবার টুইটে মুখ খুললেন কঙ্গনা। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

তিনি লিখেছেন, আমার বয়স যখন কম ছিলো, সেই সময় আমার মেন্টর যিনি পরবর্তীকালে নির্যাতনকারী হয়ে ওঠেন, তিনি আমার পানীয়তে মদ বা মাদক মিশিয়ে দিতেন। আমাকে পুলিশের কাছে যেতেও বাধা দিতেন তিনি। পরে আমি যখন সফল হই এবং বিখ্যাত ফিল্ম পার্টিগুলিতে যাওয়ার সুযোগ পাই, তখন মাদক, লাম্পট্য ও মাফিয়ার দুনিয়ার সঙ্গে পরিচিত হই।

রিয়ার হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট খুঁজতে গিয়ে টাইমস নাও সংবাদমাধ্যম দেখে, গত বছরের ২৫ নভেম্বর রিয়ার বন্ধু জয়া শাহ হোয়াটসঅ্যাপে রিয়াকে লেখেন, ‘চার ফোঁটা জলে বা চায়ে মিশিয়ে ওকে সিপ করাও… ৩০-৪০ মিনিট পরে মাতাল হবে (‘কিক’)।’ রিয়া উত্তরে লেখেন, ‘ধন্যবাদ।’ জয়ার উত্তর আসে, ‘কোনো অসুবিধা নেই। আশা করি এটা কাজ দেবে।’

এই প্রেক্ষিতে এখন মাদকের মামলা সামনে আসার পর নারকোটিক্স ডিপার্টমেন্ট সিবিআইয়ের সঙ্গে তদন্ত করবে। এখনও পর্যন্ত রিয়ার বিরুদ্ধে শুধু টাকা তছরুপের অভিযোগ ছিলো। এবার মাদকের ব্যাপারেও সুশান্তের বান্ধবীর নাম জুড়লো।

অন্যদিকে সুশান্তের মৃত্যুর পর থেকেই কঙ্গনা টুইটে মুম্বাই ইন্ডাস্ট্রির স্বজনপোষণ থেকে বলিউড মাফিয়া নিয়ে সোচ্চার। এবার বি টাউনে মাদক নিয়েও প্রকাশ্যে মুখ খুললেন তিনি।

লাইটনিউজ