শুক্রবার, ২৬ জুলাই ২০২৪, ০১:১৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
কোটাবিরোধী আন্দোলন শুক্রবার নিহতদের স্মরণে সারা দেশে দোয়া ও মোনাজাত বাংলাদেশে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে প্রত্যাশা ভারতের ‘পুলিশ মারলে দশ হাজার, ছাত্রলীগ মারলে পাঁচ হাজার ঘোষণা হয়েছিল’ এইচএসসি ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী ইন্টারনেটের গতি বাড়াতে বিটিআরসির নির্দেশ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন শোয়েব মালিক নারায়ণগঞ্জে বিএনপি-জামায়াতের নেতৃত্বে নাশকতা চালানো হয়েছে : পুলিশ গণতন্ত্রে রাজনৈতিক সহিংসতার কোনো স্থান নেই : মেয়র তাপস ২৫ হাজার কোটি টাকা ধার দিল বাংলাদেশ ব্যাংক নাশকতাকারীরা চিহ্নিত না হওয়া পর্যন্ত অভিযান চলবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে পাহাড়ধসে নিহত ৯

লাইটনিউজ রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ১৯ জুন, ২০২৪

মুষলধারে ভারী বৃষ্টিতে পৃথক পাহাড়ধসে কক্সবাজারের উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে শিশু ও নারীসহ নয়জন নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরও অন্তত ১০-১৫ জন।

বুধবার (১৯ জুন) ভোরে একাধিক ক্যাম্প এলাকায় এ পাহাড়ধসের ঘটনা ঘটে। নিহতদের মাঝে স্থানীয় কিশোরসহ দুজন বাংলাদেশি। বাকিরা সবাই রোহিঙ্গা।

উখিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শামীম হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নিহতরা হলেন, উখিয়ার ৮নং ইস্টের ব্লক বি/৮২ এর বাসিন্দা মো. আনোয়ারের ছেলে মো. হারেছ (৪), ক্যাম্প ৯ এর ব্লক আই/৪ এর বাসিন্দা আলী জোহারের মেয়ে আনোয়ারা বেগম (১৮), ব্লক আই/৯ এর বাসিন্দা মো. জামালের ছেলে মো. সালমান (৩), ক্যাম্প ১০ এর ব্লক এফ/১০ এর বাসিন্দা লাল মিয়ার ছেলে আবুল কালাম (৫৭), মতিউর রহমানের মেয়ে সলিমা খাতুন (৪২), আবুল কালামের মেয়ে আবু মেহের (২৪), শরীফ হোসেনের মেয়ে জয়নব বিবি (১৯), ক্যাম্প-৯ এ অবস্থান করা চট্টগ্রামের সাতকানিয়ার কেরানিহাট এলাকার আলী জুহারের ছেলে হোসেন আহমেদ (৫০) ও ক্যাম্প-১৪ এর পাশে পালংখালীর থাইংখালীর শাহ আলমের ছেলে আব্দুল করিম (১২)। ক্যাম্প-১৪ এর লাগোয়া বাড়িতে ভূমিধসে মারা যাওয়া আবদুল করিম স্থানীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিল।

উখিয়া থানায় ওসি মো. শামীম হোসেন জানান, মঙ্গলবার মাঝ রাত থেকে কক্সবাজার জেলায় ভারী বর্ষণ শুরু হয়। শেষরাতে তা মুষলধারে রূপ নেয়। হয়ত এর কোনো একসময় চারটি ক্যাম্পে পৃথক পাহাড়ধসের ঘটনা ঘটে। পাহাড়ের মাটিচাপা পড়ে এক ক্যাম্পে চারজন, আরেক ক্যাম্পে তিনজন, আর দুই ক্যাম্পে একজন করে মোট নয়জন মারা যান। এদের মাঝে স্থানীয় কিশোরসহ দুজন বাংলাদেশি, বাকি ৭ জন রোহিঙ্গা।

ফায়ার সার্ভিস উখিয়া স্টেশন কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম জানান, বুধবার ভোরে রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে খবর আসে পাহাড়ধসের। আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে ৯নম্বর ক্যাম্পে স্বামী-স্ত্রী ও ১০ নম্বর ক্যাম্পে ৪ জনকে মাটিচাপা অবস্থা থেকে উদ্ধার করেছি। বাকি তিন জনের মরদেহ আমরা উদ্ধার করিনি।

কক্সবাজার আবহাওয়া অফিসের সহকারী আবহাওয়াবিদ আবদুল হান্নান জানান, মঙ্গলবার রাত থেকে কক্সবাজার জুড়ে থেমে থেমে ভারী বৃষ্টিপাত হচ্ছে। বুধবার দুপুর ১২টা পর্যন্ত ৫৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। আরও বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা এবং পাহাড় ধসের আশঙ্কা রয়েছে।

কক্সবাজার শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মোহাম্মদ মিজানুর রহমান জানান, মঙ্গলবার রাত থেকে চলমান ভারী বর্ষণে উখিয়ার চারটি পৃথক ক্যাম্পে পৃথক পাহাড়ধসের ঘটনা ঘটেছে। এতে শিশু, নারীসহ ৯ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। এদের মাঝে এক কিশোরসহ দুজন বাংলাদেশি, বাকি ৭ জন রোহিঙ্গা। বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় অন্য পাহাড়ধসের শঙ্কা থাকা এলাকার বাসিন্দাদের সরিয়ে নেওয়া হচ্ছে।

আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Lightnewsbd

Developer Design Host BD