বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

ঢাকা থেকে বানিজ্যিক ফ্লাইট চান বৃটিশ হাইকমিশনার

করোনাভাইরাস সংকটে বাংলাদেশে অবস্থানরত যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের দেশে ফিরিয়ে নিতে চায় দেশটি। এজন্য বাণিজ্যিক ফ্লাইটকে সবচেয়ে ভালো উপায় মনে করেন ঢাকাস্থ ব্রিটিশ হাইকমিশনার রবার্ট চ্যাটার্টন ডিকসন। এক ভিডিও বার্তায় তিনি এ কথা বলেন।

গতকাল চারটি বিষয়ে ঢাকাস্থ ব্রিটিশ হাইকমিশনার চ্যাটার্টন ডিকসন এক ভিডিও বার্তা দেন। বার্তায় তিনি বলেন, প্রথম বিষয়টি হচ্ছে হাইকমিশনের কাছে ব্রিটিশ পর্যটকদের ঘরে ফিরিয়ে নেয়া সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার। এটি নিশ্চিতে যা করা লাগে, আমরা তা করছি। দ্বিতীয় বিষয়টি হচ্ছে, আপনারা এরই মধ্যে দেখেছেন যে আজ (গতকাল) বাংলাদেশ বিমান এয়ারলাইনস আগামী ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত তাদের কার্যক্রম স্থগিত করেছে। ফ্লাইট চালুর বিষয়টি নিশ্চিত করতে সরকার ও এয়ারলাইনসটির সঙ্গে আমাদের যা করা লাগে, আমরা তা করছি। কারণ আমরা মনে করি, হয়তো যুক্তরাজ্যে ফিরে যাওয়ার সবচেয়ে দ্রুত ও ভালো উপায় হচ্ছে বাণিজ্যিক ফ্লাইট।

ডিকসন বলেন, তৃতীয় বিষয়টি হচ্ছে বর্তমানে পুরো বিশ্ব থেকে ব্রিটিশ নাগরিকদের দেশে ফিরিয়ে আনতে ব্রিটিশ সরকার একটি বৈশ্বিক কার্যক্রম হাতে নিয়েছে। আমার জন্য এটি অগ্রাধিকারের, কারণ এখানে ব্রিটিশদের সংখ্যা অন্য জায়গার চেয়ে বেশি। চতুর্থ বিষয়টি হচ্ছে, বিশেষ করে সেই মানুষগুলোর জন্য আমরা উদ্বিগ্ন, যারা অসুস্থ। যদি আপনার অসুস্থতা থেকে থাকে, তবে আমাদের হাইকমিশনে যোগাযোগ করুন। তারা আপনাকে এ বিষয়ে সহযোগিতা করতে পারবে। আপনাদের যথাসম্ভব দ্রুত ঘরে ফিরিয়ে নিতে আমরা যা করা লাগে করছি। আমি আশা করছি, এটা খুব শিগগিরিই আমরা করতে পারব।

গত শনিবার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেন, যুক্তরাজ্য আমাদের বেশ পীড়াপীড়ি করছে লন্ডন-ঢাকা-সিলেট-ম্যানচেস্টার এ রুটগুলো খোলা রাখতে। তারা বিভিন্নভাবে তাগাদা দিচ্ছে। তিনি বলেন, আমরা বন্ধ করেছি আমাদের দেশের জনগণের স্বাস্থ্যের কথা চিন্তা করে। আমাদের দেশে যারা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন, তাদের অধিকাংশই বিদেশ থেকে আসা মানুষদের মাধ্যমে হয়েছেন। আমরা আরো আগে বন্ধ করতে চেয়েছিলাম। কিন্তু ওদের পীড়াপীড়িতে একটু দেরি হয়েছে।

লাইট / এএইচ