বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

বেতনের দাবিতে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে শ্রমিকদের বিক্ষোভ

বকেয়া বেতনের দাবিতে রাজধানীর বিভিন্ন এলাকার সড়কে বিক্ষোভ করেছেন পোশাক কারখানার শ্রমিকরা। বুধবার (১৫ এপ্রিল) সকাল ৯টা থেকে রাজধানীর দক্ষিণখান ও বাড্ডায় বিক্ষোভ করেন তারা। পরে বকেয়া পরিশোধের আশ্বাস পেয়ে রাস্তা ছেড়ে ঘরে ফেরেন শ্রমিকরা।

সকাল ৯টার দিকে দক্ষিণখানে সুপার সাইন গার্মেন্টস লিমিটেডের একটি কারখানার শ্রমিকরা বিক্ষোভ শুরু করেন। শ্রমিকদের দাবি, দুই মাস ধরে বেতন ও ওভারটাইম পাননি তারা। পরে মালিকপক্ষের সঙ্গে বৈঠকের পর শ্রমিকরা সড়ক ছেড়ে দেন বলে জানিয়েছেন দক্ষিণখান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শিকদার মো. শামীম হোসেন।

তিনি বলেন, দুই পক্ষের আলোচনা হয়েছে। শ্রমিকরা আজই বেতন পরিশোধের দাবি জানিয়েছিলেন। মালিকরা তা দিতে পারছিল না। পরে বেতনের আশ্বাস পেয়ে শ্রমিকরা রাস্তা ছেড়ে দেন।

একইভাবে বকেয়া বেতন ভাতার দাবিতে বাড্ডায় সারা ফ্যাশন নামে একটি গার্মেন্ট কারখানার শ্রমিকরা সড়কে বিক্ষোভ করেন। মালিকপক্ষ ২৫ তারিখের পর বেতন দেবে জানালে শ্রমিকরা বিক্ষোভ শুরু করেন। পরে ২০ তারিখের মধ্যে বেতন দেওয়ার আশ্বাসে সড়ক ছাড়েন শ্রমিকরা।

বকেয়া বেতনের দাবিতে দারুসসালাম এলাকায় সড়ক অবরোধ করেন শ্রমিকরা
এ নিয়ে দুই পক্ষ কারখানার ভেতরে কথা বলছে বলে জানান বাড্ডা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পারভেজ ইসলাম। তিনি বলেন, শ্রমিকরা এখন কারখানার ভেতরে অবস্থান করছেন। মালিকপক্ষের সঙ্গে আলোচনা চলছে। রাস্তায় এখন আর কেউ নেই।

ঢাকার পাশাপাশি মানিকগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, আশুলিয়া এলাকায় ১৬-১৭টি গার্মেন্ট কারখানার শ্রমিকরা বকেয়া বেতনের দাবিতে আন্দোলন করছেন বলে জানান গার্মেন্ট শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক জলি তালুকদার।

তিনি বলেন, বকেয়া বেতন, ছাঁটাই ও লে-অফের কারণে শ্রমিকরা আন্দোলন করছেন। মালিকরা শ্রমিকদের ছাঁটাই ও বেতন না দিয়ে সড়কে নামানোর মাধ্যমে সরকারের সঙ্গে আরও সুবিধা নিতে দরকষাকষির পাঁয়তারা করছে বলে মনে করেন এই শ্রমিক নেত্রী। তিনি অবিলম্বে শ্রমিকদের বকেয়া পরিশোধ ও ছাঁটাই বন্ধের আহ্বান জানান।

লাইটনিউজ/এসআই