বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

চেন্নাইয়ে আটকে পড়া ১৬৪ জন দেশে ফিরেছেন

লাইট নিউজ প্রতিবেদক: চিকিৎসার জন্য ভারতের চেন্নাইয়ে গিয়ে লকডাউনের কারণে আটকে পড়া ১৬৪ জন দেশে ফিরেছেন। সেখানে আটকে থাকা ৭০০-৮০০ বাংলাদেশির মধ্যে প্রথম ফ্লাইটে এদের ফিরিয়ে এনেছে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স।

চেন্নাই থেকে ১৬৪ জনকে নিয়ে ইউএস বাংলার বিএস-২১০ ফ্লাইটটি সোমবার (২০ এপ্রিল) বিকেল ৩টা ৪৮ মিনিটে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে। ফ্লাইটের সিট সংখ্যাও ১৬৪, অর্থাৎ কোনো আসন ফাঁকা আসেনি।

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের মহাব্যবস্থাপক (জিএম-পিআর) কামরুল ইসলাম ফ্লাইট অবতরণের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, ফ্লাইটটি নির্ধারিত সময়ের এক ঘণ্টা দেরিতে বেলা ১টা ১৯ মিনিটে বাংলাদেশের উদ্দেশে রওনা হয়ে দুই ঘণ্টার যাত্রা শেষে ঢাকায় অবতরণ করে।

সূত্র জানায়, যারা ফিরেছেন তাদের সবার করোনা পরীক্ষা করানো হয়েছে। তাদের ফলাফল ‘নেগেটিভ’ এসেছে। অর্থাৎ কারও শরীরে করোনার সংক্রমণ নেই। তারা সেই টেস্টের ফলাফলের কপি নিয়েই দেশে ফিরছেন। তবু বিমানবন্দরে তাদের স্ক্রিনিং হবে। স্ক্রিনিংয়ের পর তাদের প্রয়োজন অনুযায়ী প্রাতিষ্ঠানিক বা হোম কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হবে।

এর আগে চেন্নাইসহ ভারতে আটকে পড়া বাংলাদেশিদের ফিরিয়ে আনতে ছয়টি বিশেষ ফ্লাইট পরিচালনার কথা জানায় ইউএস-বাংলা। ২০ এপ্রিল থেকে ২৫ এপ্রিল পর্যন্ত প্রতিদিন একটি করে ফ্লাইট পরিচালনা করবে তারা।

ইউএস-বাংলা সূত্র জানায়, চেন্নাই ছাড়া কলকাতা থেকেও বাংলাদেশিদের ফেরত আনবে তারা। দুটি রুটেই ১৬৪ আসনের বোয়িং ৭৩৭- ৮০০ এয়ারক্রাফট দিয়ে ফ্লাইট পরিচালনা করা হচ্ছে। চেন্নাই থেকে নির্ধারিত দিনে স্থানীয় সময় দুপুর ১২টা ১৫ মিনিটে ফ্লাইট ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে আসবে। আর ২১ ও ২৩ এপ্রিল দু’টি ফ্লাইট কলকাতা থেকে ঢাকায় আসবে। স্থানীয় সময় বেলা ১১টা ৩০ মিনিটে ছেড়ে আসবে ফ্লাইটগুলো।

এয়ারলাইন্সটি জানায়, এই দুই রুটের টিকিট রিজার্ভেশন সংক্রান্ত যে কোনো তথ্যের জন্য ১৩৬০৫ অথবা ০১৭৭৭৭৭৭৮০০-৮০৬ নম্বরে যোগাযোগ করতে হবে।

লাইট নিউজ