বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

থাইল্যান্ডের সমুদ্র সৈকত জুড়ে কচ্ছপের মেলা

 

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে বিশ্বব্যাপী লকডাউনে জীববৈচিত্রে নিয়ে এসেছে প্রাণের ছন্দ। কোথাও কোনো মানুষ নেই, নেই ময়লা-আবর্জনা কিংবা গাড়ির কালো ধোঁয়া। যেন দীর্ঘদিন পর বন্দি দশা থেকে মুক্তির স্বাদ নিচ্ছে এসব প্রাণী।

সম্প্রতি বিভিন্ন দেশে পাখি, ভাল্লুক, শেয়াল, বাঁদরসহ বিভিন্ন বন্য প্রাণী রাস্তা কিংবা শপিংমলে ঘুরে বেড়ানোর দৃশ্য টুইটার-ইনস্টাগ্রামে ভাইরাল হতে দেখা গেছে।

এরই ধারাবাহিকতায় এবার থাইল্যান্ডের সমুদ্র সৈকত জুড়ে কচ্ছপের দেখা মেলে। সমুদ্র সৈকত জুড়ে এত বেশি কচ্ছপ দেখা যায়নি বলে জানান থাইল্যান্ডের মাই খাও মেরিন টার্টল ফাউন্ডেশনের তত্ত্বাবধায়ক হোমা-আই। তিনি বলেন, ফুকেট থাইল্যান্ডের সর্বাধিক জনপ্রিয় দ্বীপ। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে পর্যটক নিষিদ্ধ হয়ে যাওয়ায় সৈকতে কচ্ছপের দেখা মিলছে।

দীর্ঘমেয়াদি এ লকডাউনে সামুদ্রিক পরিবেশ সংরক্ষণে ইতিবাচক প্রভাব থাকতে পারে। শুধুমাত্র সামুদ্রিক কচ্ছপ নয়, ডলফিন ও অন্যান্য সামুদ্রিক প্রজাতিরও সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। এ লকডাউনে সামুদ্রিক জীবনের পুনর্জন্ম হয়েছে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

তিনি বলেন, এই মহামারি থেকে আমাদের শেখার অনেক কিছুই আছে। এসব চিত্র আমাদের বুঝিয়ে দিচ্ছে আমরা প্রাণীর নির্বিঘ্ন বিচরণকে বাধাগ্রস্ত করেছিলাম।