বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

ত্রাণ সামগ্রী পেয়ে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে মালদ্বীপের প্রেসিডেন্টের কৃতজ্ঞতা

 

করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় চিকিৎসা সরঞ্জাম ও ত্রাণ সামগ্রী পাঠানোয় বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ফোন করে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম মুহাম্মদ সলিহ।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম বুধবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানান।

সেখানে বলা হয়, মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট বেলা ১১টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে টেলিফোন করেন।

“এ সময় করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি মোকাবিলায় মালদ্বীপে চিকিৎসা সরঞ্জাম ও ত্রাণ সামগ্রী পাঠানোয় প্রধানমন্ত্রীকে মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।”

টেলিফোনে এই আলোচনায় দুই নেতা উভয় দেশের জনগণের শান্তি, সমৃদ্ধি ও অগ্রগতি কামনা করেন এবং দুই দেশের মধ্যে এ ধরনের সহযোগিতা ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে বলে আশা প্রকাশ করেন।

একশ মেট্রিক টন খাদ্য সামগ্রী, ওষুধ ও চিকিৎসা সরঞ্জাম নিয়ে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর একটি জাহাজ গত ১৫ এপ্রিল মালদ্বীপের উদ্দেশে রওনা হয়।

৪০ মেট্রিক টন চাল, ১০ মেট্রিক টন আলু, ১০ মেট্রিক টন মিষ্টি আলু, ১০ মেট্রিক টন মশুর ডাল, ৫ মেট্রিক টন ডিম এবং ৫ মেট্রিক টন সবজি ছিল এসব ত্রাণ সামগ্রীর মধ্যে।

এছাড়া বাংলাদেশে থাকা মালদ্বীপের ৭১ জন নাগরিককে মঙ্গলবার তাদের দেশে পৌঁছে দিয়ে আসে বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর একটি পরিবহন বিমান।

ভারত মহাসাগরের দ্বীপরাষ্ট্র মালদ্বীপের জনসংখ্যা চার লাখের কিছু বেশি, এর মধ্যে বিদেশি অভিবাসীর সংখ্যাই প্রায় দুই লাখের মত।

বেসরকারি হিসাবে, সেখানে ৭০ থেকে ৮০ হাজার বাংলাদেশি আছেন, যাদের একটি অংশের বৈধ কাগজপত্র নেই। এদের অধিকাংশই কাজ করছেন নির্মাণ শ্রমিক হিসাবে বা সেবা খাতে।