বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

সুশান্তের প্রতি ফ্রান্সের মহাকাশ বিশ্ববিদ্যালয়ের শ্রদ্ধা

 

নক্ষত্রবিজ্ঞান নিয়ে বেশ আগ্রহী ছিলেন অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুত। তিনিই ছিলেন বলিউডের একমাত্র তারকা যিনি চাঁদে আইনীভাবে জমি কিনেছিলেন। প্রয়াত এই তারকার বাড়িতে রয়েছে একটি টেলিস্কোপও। যা দিয়ে দূরের তারা দেখতেন তিনি।

মানুষ মারা গেলে নাকি তারা হয়ে যায়! এখন হয়তো ওই দূর আকাশের একটি তারা সুশান্ত নিজেই। গত ১৪ জুন মুম্বাইয়ের বান্দ্রার নিজের ফ্ল্যাটে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন সুশান্ত সিং রাজপুত।

সুশান্তের মৃত্যুতে স্তব্ধ হয়ে গেছে সারা বিশ্ব। বলিউডের এই অভিনেতার চলে যাওয়ায় শোক প্রকাশ করেছে সকলে। এবার ৩৪ বছর বয়সী এই তারকার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ এবং শ্রদ্ধা জানিয়েছে ফ্রান্সের ইন্টারন্যাশনাল স্পেস ইউনিভার্সিটি (আইএসইউ)।

গত বছর ফ্রান্সের ইন্টারন্যাশনাল স্পেস ইউনিভার্সিটি ঘুরে দেখার কথা ছিলো সুশান্ত সিং রাজপুতের। কিন্তু সময়সূচী না মেলার কারণে যেতে পারেননি তিনি।

আইএসইউ ইউনিভার্সিটির অফিশিয়াল টুইটার পেজে শোক প্রকাশ করে লেখা হয়েছে- “ভারতীয় অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুতে আমরা গভীরভাবে শোকাহত। তিনি এসটিইএম (সায়েন্স, টেকনোলজি, ইঞ্জিনিয়ারিং এবং ম্যাথমেটিক্স) শিক্ষার দৃঢ় সমর্থক ছিলেন। এমনকি ২০১৯ সালের গ্রীষ্মে তিনি আইএসইউর কেন্দ্রীয় ক্যাম্পাস পরিদর্শন করার আমন্ত্রণ গ্রহণ করেছিলেন। কিন্তু আসতে পারেননি।”

আইএসইউ টুইটের মাধ্যমে সুশান্ত সিং রাজপুতের পরিবার ও বন্ধুদের প্রতি সমবেদনা জানানো হয়েছে।

২০০৩ সালে দিল্লি টেকনিক্যাল ইউনিভার্সিটিতে (ডিটিইউ) ভর্তি হয়েছিলেন সুশান্ত সিং রাজপুত। কিন্তু নিজের অভিনেতা হওয়ার স্বপ্ন পূরণের জন্য সেটি ছেড়ে দেন। চার বছরের ডিগ্রি কোর্স ছাড়ার পরও বিজ্ঞান এবং জ্যোতির্বিদ্যায় তার গভীর আগ্রহ ছিল। ‘চান্দা মামা দূর কে’ চলচ্চিত্রের জন্য ২০১৭ সালে ন্যাশনাল অ্যারোনটিক্স অ্যান্ড স্পেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (নাসা ) গিয়েছিলেন সুশান্ত।