বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

ভয়াবহ দাবানাল, তবুও ইসরাইলের সাহায্য নেবে না তুরস্ক

গত ছয় দিন ধরে তুরস্কে দাবানলের তাণ্ডব চলছে। ভয়াবহ আগুন নেভাতে তুরস্ক- আজারবাইজান, রাশিয়ার, ইরান, ইউক্রেনের সহায়তা নিলেও ইসরাইলের সাহায্যের প্রস্তাব প্রত্যাখান করে দিয়েছে।

ইসরাইলের আঙ্কারার দূতাবাসের বরাতে মিডলইস্ট আই এই খবর দিয়েছে। এতে বলা হয়েছে, দাবানল নেভাতে ইসরাইল তুরস্ককে সহায়তার প্রস্তাব দিয়েছে। তবে তুরস্ক ইসরাইলের এই সাহায্যের প্রস্তাব প্রত্যাখান করেছে।

মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে ইসরাইলের দূতাবাস জানায়, ইসরাইলের কর্মকর্তারা কিছুদিন আগে তুরস্কের কর্মকর্তাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে দাবানল নিয়ন্ত্রণে সহায়তার প্রস্তাব দেন। জবাবে তুরস্ক ইসরাইলকে ‘ধন্যবাদ’ প্রদান করে বলে, আগুন ইতোমধ্যে নিয়ন্ত্রণে এসেছে।

তুরস্ক সহায়তা নেওয়ার প্রস্তাব প্রত্যাখান করলেও আঙ্কারার ইসরাইল দূতাবাস বলেছে, আগুন নেভাতে তারা তুরস্ককে সর্বদা সহায়তা করতে প্রস্তুত।

এর আগে তুরস্ক গ্রিস এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নের সহায়তার প্রস্তাব প্রত্যাখান করে। কিন্তু জনগণের চাপের মুখে ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে শুধুমাত্র তিনটি এয়ার ট্যাঙ্কার গ্রহণ করেছে তুরস্ক।

যেসব দেশের সঙ্গে ভালো রাজনৈতিক সম্পর্ক তুরস্ক শুধুমাত্র সেসব দেশ যেমন- রাশিয়া, ইউক্রেন, আজারবাইজান, কাতারের কাছ থেকে সহায়তা নিচ্ছে।

গত বুধবার তুরস্কের দক্ষিণাঞ্চলের সিরিনইয়ার বনে আগুন লাগে। পরে বাতাসের মাধ্যমে আগুন ১৩৮টি বনে ছড়িয়ে পড়ে।

তুরস্কের যোগাযোগ বিষয়ক পরিচালক ফখরুদ্দিন আলতুন এক টুইট বর্তায় জানিয়েছেন, বর্তমানে ৩৫টি প্রদেশে দাবানল ছড়িয়ে পড়েছে। মোট ১২৯টি বনাঞ্চলের আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে।

এদিকে, দাবানলে তুরস্কে নিহতের সংখ্যা বেড়ে আটজনে দাঁড়িয়েছে। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যিপ এরদোগান ইতোমধ্যেই দাবানল আক্রান্ত অঞ্চলকে ‘দুর্যোগকবলিত এলাকা’ হিসেবে ঘোষণা করেছেন।