বাংলা ও বিশ্বের সকল খবর এখানে
শিরোনাম

ঘরোয়া যেসব উপায়ে ওষুধ না খেয়েই দূর হবে মাথাব্যথা

লাইফস্টাইল ডেস্ক : আমরা সবাই কমবেশি মাথাব্যথার সমস্যায় ভুগে থাকি। নানা কারণেই মাথাব্যথা হতে পারে। অনিয়মিত খাবার গ্রহণ, রক্তচাপে তারতম্য, জীবনযাপনে অসাবধানতা— এসব কারণে মাথাব্যথা হতে পারে। বর্তমান সময়ে ডিজিটাল ডিভাইস ব্যবহার বেড়ে যাওয়ায় এ সমস্যা আরও বেশি দেখা যায়।

একটু মাথাব্যথা হলেই আমরা ওষুধের খোঁজ করা শুরু করি। কিন্তু ব্যথানাশক এসব ওষুধের অনেক খারাপ প্রভাব সম্পর্কে জানেন না অনেকেই।

ঘরোয়া উপায় অবলম্বনে মাথাব্যথা দূর করা যায়। আসুন জেনে নিই সেই সম্পর্কে—

১. শরীরকে হাইড্রেট রাখা

আপনার মাথাব্যথা সমস্যা সমাধানের উপায় হতে পারে এক গ্লাস পানি পানেই। মাথাব্যথা হলে যতটা পারা যায় শরীরকে হাইড্রেট রাখতে হবে; অর্থাৎ শরীরে বেশি পরিমাণে পানি রাখতে হবে। কারণ ডিহাইড্রেশন বা পানিশূন্যতা অনেক সময় মাথাব্যথার কারণ হতে পারে এবং মাথাব্যথা থাকলে সেটি আরও বাড়িয়ে তুলতে পারে।

২. আদা চা
মাথাব্যথা হলেই অনেকেরই জানা একটি সহজ সমাধান হচ্ছে আদা চা। আদা চা মাথাব্যথা কমায়। এক গবেষণায় দেখা গেছে যে, আদা মাইগ্রেনসহ জরুরি চিকিৎসায় থাকা মানুষের ব্যথা কমিয়েছে।

৩. ক্যাফেইন
ক্যাফেইন মাথাব্যথার সমস্যা কমাতে পারে। তবে মনে রাখতে হবে— অতিরিক্ত ক্যাফেইন কিন্তু মাথাব্যথা আরও বাড়িয়ে দিতে পারে। তাই এটি নিতে হবে পরিমিত। আর ক্যাফেইন নেওয়ার পর যথেষ্ট পরিমাণে পানি পান করতে হবে। কারণ ক্যাফেইন একটি ডিহাইড্রেটর।

৪. ঘুম
মাথাব্যাথা হওয়ার অন্যতম একটি প্রধান কারণ হচ্ছে— ঘুমের ঘাটতি। তাই আপনার মাথাব্যথা হলে কিছু সময় ঘুমিয়ে নিতে পারেন। একটু ঘুম হলে আপনার মাথাব্যথা অনেকটাই কমে যেতে পারে।

৫. মানসিক চাপ কমান
মানসিক চাপের কারণে অনেক সময় মাথাব্যথা হয়ে থাকে। তাই মাথাব্যথা হলে যতটা সম্ভব মানসিক চাপ কমান। এটির জন্য আপনি কিছু স্ট্রেস রিলিভিং ব্যায়াম করতে পারেন। আর মাথাব্যথা হলে যতটা সম্ভব ফ্রি থাকুন। এ সময় আপনি চাপা কোনো কাপড় পরে থাকলে, চশমা পরে থাকলে বা মাথায় টুপি পরে থাকলে সেগুলো হালকা করুন।

৬. ম্যাসাজ
মাথাব্যথা কমাতে কিছু ম্যাসাজ অনেক কার্যকরী হয়ে থাকে। এতে আপনার সবচেয়ে বেশি ব্যথা হওয়ার স্থানে ম্যাসাজ করতে পারেন। এ ছাড়া নাকের ওপরে, ভ্রুর গোড়ায়, চোয়ালে, ঘাড়ে এবং কপালে ম্যাসাজ করলেও মাথাব্যথা কমে যেতে পারে অনেকটাই।

তথ্যসূত্র: ফেমিনা ডটইন